শিরোনাম :
বাঁশের সাঁকো পারাপারের গুনতে হচ্ছে মাথাপিছু পাঁচ টাকা । ব্রাহ্মণবাড়িয়া সাংবাদিক ইউনিয়ন গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রীকে ফুলের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন । তিন ডাকাত ও এক মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছে। আব্দুল্লাহশাহ মাজারের নতুন কমিটি গঠন,সভাপতি নিয়ামত সাধারণ সম্পাদক বিল্লাল। মুসলিম মহিলা হিন্দু সেজে উৎসব চলাকালীন সময় স্বর্ণের চেইন চুরি করতে গিয়ে জনতার হাতে আটক ব্রাহ্মণবাড়িয়া আইনজীবী সমিতি সভাপতি কামরুজ্জামান সাধারণ সম্পাদক, মফিজুর রহমান ধর্ষণের মামলা আসামী সাকিব গ্রেফতার ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ আসনের নৌকার প্রার্থী ফরহাদ হোসেন সংগ্রামের বিরুদ্ধে মামলার নির্দেশ ইসির নাসিরনগরে নৌকা মার্কা ভালো মাঝি ভালো না, নৌকার ভরাডুবি সাংবাদিক সম্মেলন করে নির্বাচনী ইশতেহারে ঘোষনা করলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী একরামুজ্জামান সুখন ।
বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৯:৪২ অপরাহ্ন

নাসিরনগরে বসাক নামে এক মানবাধিকার কার্যালয়ের সভাপতি ও সম্পাদকের নামে অভিযোগ।

প্রতিনিধির নাম / ১৬৫ বার
আপডেট : মঙ্গলবার, ২১ নভেম্বর, ২০২৩

মিহির দেব, ব্রাহ্মণবাড়িয়া :ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগর উপজেলার নুরপুর এলাকায় বাংলাদেশ আইন সহায়তা কেন্দ্র (বসাক) এর সভাপতি ও সম্পাদকের বিরুদ্ধে সাদা ষ্টেম্পে সাক্ষর নেয়ার অভিযোগ উঠেছে।
এই বিষয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া আদালতে বাংলাদেশ আইন সহায়তা কেন্দ্র (বসাক) এর সভাপতি আবুল কাশেম, সম্পাদক মো: রফিক চিশতী, সদস্য কায়েশ রাজা ও বিলকিছ বেগম’র বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন নাসিরনগর নুরপুর এলাকার আছমত আলীর স্ত্রী রাবিয়া বেগম।
অভিযোগকারী ও মামলা সূত্রে জানা যায়, রাবিয়া বেগমের ছেলে রাসেল মিয়া বিলকিছের ছেলে কে সৌদি আরব পাঠায়। সেখানে ওই ছেলে অশান্তিতে আছে বলে বাংলাদেশ আইন সহায়তা কেন্দ্র (বসাক) কার্যালয় নুরপুর এলাকায় অভিযোগ করেন বিলকিস বেগম। পরে বসাক এর সভাপতি আবুল কাশেম, সম্পাদক মো: রফিক চিশতী, স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে রাবিয়া বেগম কে নোটিশ পাঠানো হয়। চিঠিতে ২/৯/২৩ ও ৪/৯/২৩ তারিখ বসাক কার্যালয়ে বসার জন্য। ঐ তারিখে নিষ্পত্তি না হওয়ায় পুনরায় তারিখ দেয়া হয়। পরে রাবিয়া বেগম আসমত আলী, রুপালী বেগম, ছোট্র মিয়া, রিনা বেগম কে বসাক কার্যালয়ে যায়। সেখানে রাবিয়া বেগম ও আসমত আলী কে ১০০ টাকার ৩টি সাদা ষ্টেম্পে সাক্ষর করতে বলে। তারা স্বাক্ষর করতে অপারগতা প্রকাশ করলে তাদের হুমকি ধমকি দিয়ে স্বাক্ষর নেয়া হয়। এরপর বিষয়টি এলাকার সালিশকারক দের মাধ্যমেও কোন সমাধান না পাওয়ায় বাধ্য হয়ে আদালতে মামলা দায়ের করেন।
ভুক্তভোগী রাবিয়া বেগম জানান, তাকে জোর করে নুরপুর এলাকায় এক মানবাধিকার অফিসে নিয়ে স্বাক্ষর ও টিপসই রাখে খালি ষ্টাম্পে, পরে এইটার মধ্যে ৮ লক্ষ টাকা লিখে রাখে। পরে বাধ্য হয়ে গত
১৫ নভেম্বর ব্রাহ্মণবাড়িয়া আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন যার নম্বর ফৌ: কা: বি: ৯৮ ধারা। তিনি বলেন আমি এইটার সুষ্ঠু সমাধান চাই আদালতের মাধ্যমে।
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগর উপজেলার নুরপুর এলাকায় বাংলাদেশ আইন সহায়তা কেন্দ্র (বসাক) এর সভাপতি ও সম্পাদকের বিরুদ্ধে সাদা ষ্টেম্পে সাক্ষর নেয়ার অভিযোগ উঠেছে, এ বিষয়ে দৈনিক বাংলাদেশ সমাচারের প্রতিনিধি জানতে চাইলে, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ রফিক চিশতি বলেন আমরা উনাদেরকে নোটিশ করেছি , বিলকিস বেগম আট লাখ টাকা পাইতো আমাদের কাছে দ্বারস্ত হওয়ার কারণে আমরা নোটিশ করেছি, স্টাম্পে কোন সাক্ষ্য নেই নাই ।
বাংলাদেশ আইন সহায়তা কেন্দ্র ফাউন্ডেশন (বাসক)নাসিরনগর উপজেলার সভাপতি আবুল কাশেম বলেন আমরা উনাকে নোটিশ করেছি কিন্তু আমরা

স্টাম্পে কোন সাক্ষ্য নেই নাই।


এ জাতীয় আরো সংবাদ